মাস্ক ক্রয়ে জালিয়াতির অভিযোগটি অনুসন্ধান করবে দুর্নীতি দমন কমিশন

 

করোনা পরিস্থিতিতে কেন্দ্রীয় ঔষধাগার (সিএমএসডি) এর পক্ষ থেকে এন-৯৫ মাস্ক, পিপিইসহ বিভিন্ন সুরক্ষা সামগ্রী কেনায় অনিয়মের অভিযোগ অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

১০ জুন কমিশন থেকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। দুদকের পরিচালক (জনসংযোগ) প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য গণমাধ্যমে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এই কর্মকর্তা জানান, এন-৯৫ মাস্ক, পিপিইসহ বিভিন্ন সুরক্ষামূলক সামগ্রী ক্রয়ে অনিয়ম-দুর্নীতি-প্রতারণা বা জাল জালিয়াতির অভিযোগটি অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন।

অনুসন্ধানকারী কর্মকর্তা নিয়োগের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

উল্লেখ্য, রাজধানীর মুগদা জেনারেল হাসপাতালসহ কয়েকটি সরকারি হাসপাতালে কেন্দ্রীয় ঔষধাগারের মাধ্যমে এন-৯৫ ব্র্যান্ডের মোড়কে সাধারণ ও নিম্ন মানের মাস্ক সরবরাহ করেছিল জেএমআই গ্রুপ।

কেলেঙ্কারির  এই ঘটনায় তদন্ত এবং জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট দায়ের করা হয়।

পরে এ ঘটনায় তদন্ত কমিটিও গঠন করেছিল স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।